হৃদয়ের অন্তরীক্ষে নৃত্যময়ী

নৃত্যময়ী
তুমি হাসলে
নীল আকাশের বুকে
ঝলমল করে উদাসী রোদ্দুর,
মরুর বুকে ফোটে রক্তিম গোলাপ;
প্রকৃতি হয়ে উঠে ঝরনার মতোই চঞ্চল।

নৃত্যময়ী
তুমি কাঁদলে
মেঘের জমিন ছুঁয়ে
ধরায় ঝরে অবিরাম বর্ষণ,
দিবস রজনী কাঁদে কুহেলি আঁধার;
সমুদ্র হয়ে উঠে জলোচ্ছ্বাসের মতোই উত্তাল।

নৃত্যময়ী
তুমি ডাকলে
অন্তর গহিনে জাগে
অজানা প্রণয়ের স্নিগ্ধ স্পন্দন,
নয়ন রাঙে রংধনুর সাতটি রঙে;
চিত্ত হয়ে উঠে কোজাগরীর মতোই উজ্জ্বল।

নৃত্যময়ী
তুমি ভালবাসলে
উন্মাদনার তপ্ত নেশায়
জুড়ায় প্রাণের আজন্ম তৃষা,
রক্তের কণিকায় বহে উষ্ণ শিহরণ;
আমিও হয়ে উঠি সভ্যতার আদিম দাবানল।

5.00 avg. rating (99% score) - 14 votes